Image default
স্বাস্থ্য

চুল পড়া রোধের কিছু ঘরোয়া টিপস

চুল পড়া খুবই কমন একটি সমস্যা । নারী –পুরুষ উভয়েই এ সমস্যাতে ভুগে থাকেন । বলা হয়ে থাকে দৈনিক ১০০টি চুল পড়া স্বাভাবিক । কিন্তু তার অধিক হলেই সেটি চিন্তার কারন হয়ে দাড়ায় ।  চুল পড়তে পড়তে অনেকের মাথায় টাক পড়ে যায় । তবে কিছু ঘরোয়া উপায়েই চুল পড়া বন্ধ করা যায় ।

চুল পড়া রোধে ঘরোয়া উপায় :

১ । অ্যালোভেরা জেল :
alovera.jpg
অ্যালেভেরা জেল চুল পড়া রোধ করতে দারুণ উপকারি ।

অ্যালোভেরা জেল চুল ও ত্বকের জন্য খুবই উপকারি । চুল পড়া সমস্যা থেকে পরিত্রান পেতে সপ্তাহে দুইদিন অ্যালোভেরা জেল ব্যবহার করুন । অ্যালোভেরার পাতা থেকে সংগ্রহিত জেল  চুলের আগা থেকে গোড়া পর্যন্ত ভালো করে লাগান । ২০ মিনিট অপেক্ষা করে ভেষজ শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন । এটি আপনার চুল পড়া বন্ধ করার পাশাপাশি চুল ঝলমলে করে তুলবে ।

আরো পড়ুন

কামরাঙ্গা খাওয়ার উপকারীতা ও সতর্কতা
২ । মেথি :

মেথি শরীরের জন্য যেমন উপকারি , চুলের যত্নেও এটি দারুন কাজ করে । আধা কাপ মেথি সারারাত পানিতে ভিজিয়ে রাখুন । সকালে বেটে চুলে লাগান । ১ ঘণ্টা পর মাইল্ড শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন । এছাড়া নারিকেল তেলের সাথেও এটি ব্যবহার করতে পারেন । আধা কাপ নারকেল তেলে ১ চা চামচ মেথি দিয়ে কয়েক মিনিট ফুটিয়ে নিন । ঠাণ্ডা হলে চুলের গোড়ায় ম্যাসাজ করুন । ১ ঘণ্টা অপেক্ষা করে মাইল্ড শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন ।

৩ । পেঁয়াজের রস :

চুল পড়া রোধ করতে পেঁয়াজের রস দারুণ কাজ করে । শুধু চুল পড়া বন্ধ হবে না, নতুন চুলও গজাবে । পেঁয়াজের রস গোসলের আগে চুলের গোড়ায় ঘষে ঘষে লাগান । পেঁয়াজের ঝাঁঝালো গন্ধ দূর করতে চাইলে কয়েক ফোঁটা এসেনশিয়াল অয়েল মিশিয়ে নেওয়া যেতে পারে । তারপর ৩০ মিনিট অপেক্ষা করে  শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন ।

৪ । মেহেদি পাতা :

চুল পড়া সমস্যা রোধ করতে সপ্তাহে একদিন মেহেদি পাতা ব্যবহার করুন । গোসলের একঘন্টা আগে মেহেদি পাতার পেস্ট সমস্ত চুলে ভালো করে লাগান । একঘন্টা অপেক্ষা করে স্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন । এছাড়া সরিষার তেলের সাথেও এটি ব্যবহার করতে পারেন । ২৫০ মিলি সরিষার তেলে ৩০টি মেহেদি পাতা দিয়ে ফুটিয়ে নিন । ঠাণ্ডা হলে ম্যাসাজ করুন চুলের গোড়ায় । ২০ মিনিট অপেক্ষা করে ভেষজ শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে নিন । সপ্তাহে একদিন ব্যবহার করুন এই তেল ।

৫ । ডিমের কুসুম :

একটি ডিমের কুসুম ভালো করে ফেটিয়ে নিন । মিশ্রণটি চুলের গোড়ায় ভালো করে লাগিয়ে অপেক্ষা করুন ।  ৩০ মিনিট পরে শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন । ডিমের কুসুমের সাথে মধু ব্যবহার করলেও ভালো ফল পাওয়া যায় ।

৬ । হট অয়েল :

কয়েক ধরনের তেল একসঙ্গে মিশিয়ে সপ্তাহে একদিন চুলে ম্যাসাজ করুন । ব্যবহারের আগে সামান্য গরম করে নেবেন ।  একটি তোয়ালে গরম পানিতে ডুবিয়ে নিংড়ে নিন। চুল জড়িয়ে রাখুন গরম তোয়ালে দিয়ে । ১৫ মিনিট পর তোয়ালে খুলে ১০ মিনিট অপেক্ষা করুন । এরপর শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন ।

৭ । ভিটামিন ই :

ভিটামিন ই মাথার ত্বকে রক্ত সঞ্চালন বৃদ্ধি করে। ফলে চুলের ফলিকল উৎপাদনশীল থাকে । তাই চুল পড়ার সমস্যা রোধে  চুলের গোড়ায় ভিটামিন ই ব্যবহার করুন । এছাড়াও ভিটামিন ই চুলের স্বাস্থ্যকর রং বজায় রাখতে সহায়তা করে ।

৮ । আমলকি :

আমলকিতে ​উপস্থিত ভিটামিন সি চুলের পুষ্টি বৃদ্ধি করে, সেই সঙ্গে স্কাল্পের স্বাস্থ্যেরও উন্নতি ঘটায় । ফলে চুল পড়ার প্রবণতা কমে যায় । চুল পড়া রোধের পাশপাশি চুল ঘন করতে আমলকির কোন বিকল্প নেই বললেই চলে । যারা আমলকি খেতে পারেন না তারা চুলে আমলকি ব্যবহার করতে পারেন ।  ১ চামচ আমলকির রসের সঙ্গে ১ চামচ লেবুর রস মিশিয়ে নিন । মিশ্রনটি ভাল করে চুলে লাগিয়ে সারা রাত মেখে রেখে পরদিন সকালে ধুয়ে ফেলতে ফেলুন ।

আরো পড়ুন

ঔষধী ফল আমলকী : কেন খাবেন

শরীরে পানিশূন্যতার সৃষ্টি হলে চুল পড়ার পরিমাণ বেড়ে যায় । তাই প্রতিদিন পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করুন । চুল পড়া রোধ করতে  প্রচুর পরিমাণে প্রোটিনসমৃদ্ধআঁশজাতীয় খাবার খেতে হবে । নিয়মিত সবুজ শাকসবজি ও তাজা ফল খান ।  খাবার তালিকাতে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিডযুক্ত খাবার রাখুন ।

Related posts

হাইপার-থাইরয়েড : লক্ষণ ও চিকিৎসা

jibondharaa

হিট স্ট্রোক কি ? হিট স্ট্রোকের কারণ ও প্রতিকার

jibondharaa

লিভার সিরোসিস কি । লিভার সিরোসিসের চিকিৎসা ।

jibondharaa

Leave a Comment